Let's Discuss!

সাধারণ জ্ঞান বিষয়ক বিস্তারিত তথ্য
#3591
বিশ্বের দ্রুততম মানব ক্যালকুলেটর
মাথার মধ্যে অঙ্ক কষার বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন শীপে ভারতের হয়ে প্রথম স্বর্ণ পদক জয় করেন ২০ বছর বয়সি নীলকান্ত ভানু প্রকাশ। দৌড়ের ক্ষেত্রে উসাইন বোল্ট যেমন, অঙ্কের ব্যাপরে নীলকান্ত ভানু ঠিক সে রকম। তিনি মনে মনে অঙ্ক করতে পারার বিষয়টি দৌড় প্রতিযোগিতার সাথে তুলনা করেন। সবাই তাকে ডাকে ভানু নামে । সবসময় সংখ্যার কথা তার মাথায় ঘোরে এবং তিনি এখন বিশ্বের দ্রুততম মানব ক্যালকুলেটর।
চুল কাটাননি ৮০ বছর
ভিয়েতনামের এনগুয়েন ভান চিয়েনের বয়স এখন ৯২ । তার মাএ ১২ বছর থেকে চুল কাটা বন্ধ করে দেন তিনি । অর্থাৎ গত ৮০ বছরে একবারের জন্যও চুল কাটেননি এনগুয়েন। ভিয়েতনামের মিকং ডেল্টা এলাকার ঐ বাসিন্দার চুল এখন ৫ মিটার লম্বা্ । এনগুয়েন বলেন, আমি বিশ্বাস করি যে চুল কেটে ফেলার পর মারা যাব। সেই কারণে চুল কেটে ফেলার ঝুকি নেওয়ার সাহস করতে পারিনি। আমি শুধু চুলের যত্মই নিয়েছি, চুল নষ্ট যেন না হয় সে জন্য ঢেকে রাখি। মাঝে মধ্যেই পরিষ্কার করি যেন দেখতে ভালো লাগে। স্কুলে যাওয়া শুরু করার পর চুল কেটে ফেলার চাপ আসে । কিন্তু আমি চুল কাটিনি। আমি মনে করি, চুলের সাথে মৃত্যুর একটা সম্পর্ক আছে।
৪৪২ ক্যারেটের হীরার সন্ধান
আফ্রিকার দক্ষিণাঞ্চলীয় দেশ লেসেথো খনিজ সম্পদে সমৃদ্ধ। দেশটির লেটসেং খনি থেকে সম্পতি ৪৪২ ক্যারেটের একটি অমসৃণ হীরা উত্তোলন করে লন্ডনভিত্তিক বৈশিক হিরা উত্তোলন ও বিপননকারী প্রতিষ্ঠান জেম ডায়মন্ডস। ২০২০ সালে লেথোসের খনিগুলো থেকে উত্তলন করা সবচেয়ে সাদা রঙের হীরা এটি। হীরাটি অলংকার তৈরির কাজে ব্যবহার করা হবে। এটি বিশ্বের সর্বোচ্চ হীরা খনি নামে পরিচিত। এ খনিটি থেকে অলংকার তৈরির জন্য ভালো মানের হীরা পাওয়া যায়। হীরাগুলো আকারেও বেশ বড়। এ কারণে ইউরোপ আমেরিকার অলংকার বাজারে লেসোথোর এ খনি থেকে উত্তোলন করা হীরার চাহিদা রয়েছে।
বিশ্বের সবচেয়ে দামি ভেড়া
২৭ আগষ্ট ২০২০ স্কটল্যান্ডে একটি ভেড়া বিক্রি হয় ৩,৬৭,৫০০ ব্রিটিশ পাউন্ড মূল্যে, যা বাংলাদেশি মূদ্রায় ৪,১৬,২৫,০০০ টাকা। ‘ডাবল ডায়মন্ড’ নামের বাদামি রঙের টেক্সেল প্রজাতির এ ভেড়াটি বিশ্বের সবচেয়ে দামি ভেড়া। তিনটি ফার্ম মিলে এক সঙ্গে কিনেছে এ ভেড়াটি। ভেড়াটি বিক্রি করেন চার্লি বোডেন ও তার পরিবার।
গাড়ি উড়ল আকাশে
২৫ আগষ্ট ২০২০ উড়ন্ত গাড়ির সফল পরীক্ষা চালানোর কথা জানায় জাপান। ঐদিন দেশটির উড়ন্ত গাড়ি প্রস্তুতকারক স্কাই ড্রাইভ সম্পন্ন করে । একজন যাত্রী নিয়ে টয়েটো ফিল্ডে উড়ানো হয় এ গাড়িটি। ডিসেম্বর ২০১৯ এ গাড়ির পরীক্ষা শুরু করেছিল স্কাই ড্রাইভ যা মার্চ ২০২০ শেষ হয়। তারপর সম্প্রতি প্রথমবারের মতো জনমুখে এ গাড়ির পরীক্ষা সম্পন্ন করা হয়। যানটি দেখতে হালকা মোটর সাইকেলের মতো। প্রপেলারের সাহায্যে কয়েকফুট পর্যন্ত উপরে উঠতে সক্ষম এ যানটি। প্রথমবার চারমিনিট যান চালিয়ে দেখে চালক। সব ঠিক থাকলে ২০২৩ সালে মধ্যেই উড়ন্ত গাড়ি যাত্রী পরিবহনে ব্যবহারের উদ্দেশ্যে বিক্রি শুরু হবে।
’উড়ন্ত’ স্পিডবোট
সম্প্রতি সুইজারল্যান্ডের যাত্রা শুরু করে বিশ্বের প্রথম বিদ্যুৎ চালিত ‘উড়ন্ত’ স্পিডবোট, যার নাম দেয়া হয় ‘ক্যান্ডেলা সেভেন’। এক উড়ন্ত স্পিডবোট বলার কারণ হলো এটি ঢেওয়ের ওপর দিয়ে অনেকটা ভেসে চলতে পারে। নৌযানটির নিচের একটি ধাতব কাঠামো ফায়েল এটিকে পানির স্তর থেকে কিছুটা ওপরে তুলতে পারে। এতে ধেয়ে আসা ঢেউ স্পিডবোটটির নিচ দিয়ে চলে যায়। ঢেউয়ের ওপর দিয়ে উড়ে চলায় শক্তি খরচ ও শব্দ কম হয় এ স্পিডবোটে। একবারের পূর্ণ চার্জে ৯০ কিলোমিটার চলতে পারে। পানির ওপর ভেসে চলাকালীন ঘন্টায় ৫৫ কিলোমিটার পর্যন্ত গতিবেগ তুলতে পারে এ স্পিডবোটটি। এর মূল্য ২,৯৬,০০০ মার্কিন ডলার (বাংলাদেশি মুদ্রায় আড়াই কোটি টাকার বেশি)।
    Similar Topics
    TopicsStatisticsLast post
    0 Replies 
    297 Views
    by shanta
    0 Replies 
    338 Views
    by romen
    0 Replies 
    472 Views
    by shahan
    0 Replies 
    246 Views
    by masum
    0 Replies 
    267 Views
    by Islammahabul47

    ১. সূর্য এবং তার গ্রহ ,উপগ্রহ ,গ্রহাণুপুঞ্জ ,অসংখ্[…]

    ১. অর্থনৈতিক সমীক্ষা ২০২০ অনুসারে দেশের দারিদ্রের […]

    ১. আন্তর্জাতিক মহাকাশ কেন্দ্র -পৃথিবীর নিম্নকক্ষে […]