Try bdQuiz for Free!

চাকরি প্রর্থীদের সমস্যা, প্রশ্ন, মতামত এবং বিভিন্ন পেশা সর্ম্পকে আলোচনা, অভিজ্ঞতা ও পরামর্শ
#237
ধাপ-১: লক্ষ্য নির্ধারণ (Goal setting) করো: প্রথমে ভালো করে জানো, কেনো তুমি বিসিএস দিবে, কোন ক্যাডার পেলে চাকরি করবে, তোমার আর কী কী বিকল্প আছে ইত্যাদি। ভেবে লক্ষ্য স্থির করো। [বি.দ্র: আমি অনার্স ২য় বর্ষে বিসিএস এর জন্য লক্ষ্য স্থির করেছিলাম]

ধাপ-২: জেনে না্ও বিসিএস পরীক্ষাটা কী: বিসিএস হলো বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিস এর সংক্ষিপ্ত রূপ। বিসিএস পরীক্ষা নেয় বাংলাদেশ পাবলিক সার্ভিস কমিশন (বিপিএসসি)। এ পরীক্ষায় যারা টিকে, তাদেরকে বিপিএসসির সুপারিশক্রমে মোট ২৮ টি ক্যাডারে ১ম শ্রেণির গেজেটেড কর্মকর্তা নিয়োগ দেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মহামান্য রাষ্ট্রপতি মহোদয়।

ধাপ-৩: ক্যাডারগুলো সম্পর্কে জানো ও পছন্দক্রম ঠিক করো:
General cadres: Administration, Foreign Affairs, Taxation, Police, Audit & Accounts, Customs & Excise, Cooperatives, Economic, Food, Information, Family Planning, Postal, Railway Transportation & Commercial, Ansar & Trade.
Technical cadres: Roads & Highways, Public Works, Telecommunications, Public Health Engineering, Forest, Health, Railway Engineering, Livestock, Fisheries, Statistics, General Education, Technical Education, Information, Agriculture & Food. [বি.দ্র: আমার ক্ষেত্রে ছিলো: Foreign Affairs> Administration> Police> Customs & Excise> Economic> Audit & Accounts> Taxation> Information> Railway Transportation & Commercial> Food> Family Planning> Postal> Cooperative> Ansar> Trade. আমার টেকনিক্যাল দেয়ার সুযোগ ছিলো না]

ধাপ-৪: ভাবতে থাকো তুমি তোমার পছন্দের চাকরি পেয়ে গেছো: এটা হলো অবচেতন মনকে এক ধরনের নির্দেশনা। এটা (আল্লাহ পাকের ইচ্ছায়) তোমার লক্ষ্যে পৌঁছতে সহায়তা করে। সেভাবে নিজেকে প্রস্তুত করতে চেষ্টা করো। [আমার মূল পছন্দ ছিলো সচিব অথবা রাষ্ট্রদূত হওয়া। আলহামদুলিল্লাহ এখনো দুটো সুযোগই আছে। আমি এখনো সেভাবে ভাবি এবং নিজেকে প্রস্তুত করার চেষ্টা করি। ইনশাল্লাহ হবোই। আমি তোমাদের দোয়া প্রার্থী]

ধাপ-৫: কয়েকটা বিষয় মনে রাখো
-বিসিএস পরীক্ষায় কোনো দুর্নীতি হয় না
-তোমার Political view চাকরির ক্ষেত্রে কোনো প্রভাব ফেলে না
-ঠিকমতো পড়লে তোমার চাকরি হবেই (ইনশাল্লাহ)
-তোমার যদি কোটা থাকে, বিসিএস না হওয়াটা তোমার এক ধরনের অন্যায় [বি.দ্র: আমার মুক্তিযোদ্ধা কোটা ছিলো]
-তোমার যদি কোটা না থাকে, তোমার অন্ততঃ জেলা কোটা আছে
-কোটা ছাড়াই বিসিএস এ প্রথম পর্যন্ত হওয়া যায়, একটা চাকরি তো পাওয়াই যায়
-প্রিলি, রিটেন বা ভাইভা-তে নম্বর পা্ওয়ার ক্ষেত্রে কোটার কোনো ভূমিকা নেই
-প্রিলিতে ৭০% পেলে চান্স পাবেই (ইনশাল্লাহ); রিটেনে ৫০% এ পাশ, ৬০% পেয়ে তুমি প্রথম পর্যন্ত হতে পারো, ভাইভা তে ৪০% এ পাশ।
-তুমি অনেক বার পরীক্ষা দিতে পারবে। কিন্তু এক বারেই যদি পাওয়া যায় এতোবারের আশায় বসে থাকবে কেনো, প্রথমেই খুব ভালো করে পরীক্ষা দা্ও
-“বিসিএস মেধাবীদের জন্য নয়, এটি ধৈর্যশীল মেধাবীদের জন্য।” [বি.দ্র: এটি পিএসসির সাবেক চেয়ারম্যান ড. সা’দত হোসেন স্যার এর একটি উক্তি]

ধাপ-৬: পরীক্ষা সম্পর্কে জানো: বিসিএস এ থাকে
Preliminary(200marks)> written(900)> viva(200)> medical test & Police verification> gazette publication> Appointment
Preliminary শুধু পাশ করতে হয়। এই নম্বর পরে আর কোনো কাজে লাগে না। পাশ নম্বর নির্ধারণ হয় কতো জন নিবে তার উপর ভিত্তি করে। written+viva নিয়ে ফাইনাল রেজাল্ট তৈরি হয়।

ধাপ-৭: শুধু Preliminary এর জন্য প্রস্তুতি না্ও, বাকি সব ভুলে যা্ও: প্রিলিতে থাকে ২০০ নম্বরের MCQ; বাংলা, ইংরেজি, গণিত, সাধারণ জ্ঞান, বিজ্ঞান, মানসিক দক্ষতা, ভূগোল। একটা ভুলের জন্য ০.৫ নম্বর কাটা যাবে। প্রস্তুতি নাও এভাবে:
-টাকা নিয়ে সোজা নীলক্ষেত চলে যাও
>প্রিলির যেকোনো সেট বই কিনো [বি.দ্র: আমি কিনেছিলাম বাংলা-প্রফেসর’স, সৌমিত্র শেখর; ইংরেজি-প্রফেসর’স; সাধারণ জ্ঞান-আজকের বিশ্ব; গণিত-কিনি নাই, (আলহামদুলিল্লাহ) আগেই পারি; বিজ্ঞান: MP3, মানসিক দক্ষতা ও ভূগোল আমাদের সময় ছিলো না।]
-এমনিতেই বিষয়ভিত্তিক যেসব বই বাসায় আছে, সেগুলোও রেখে দাও, কাজে লাগবে
>আগের বছরগুলোর প্রশ্নগুলো পড়ো
>দেখো preparation ছাড়া কতো পা্ও, 70% পেতে আর কতো লাগে। ৭০% পেতে বাকি যতো থাকে, তার জন্যই তুমি preparation নিবে
>তোমার strength ও weakness বের করো
>strength গুলো ভালো করে practice করো, weakness গুলোকে শিখে strength এ পরিণত করো
>Model question এর একটা বই কিনে practice করো । এতে ভুল উত্তর দেয়ার অভ্যাস দূর হবে (ইনশাল্লাহ) [বি.দ্র: আমি প্রফেসর’স এর model test কিনেছিলাম। আলহামদুলিল্লাহ এতে আমার ভুল উত্তর দেয়ার প্রবণতা কমে গিয়েছিলো]
>Preliminary পরীক্ষার form fill up করো
>পরীক্ষা দা্ও
>পাশ করো (দোয়া করি)

ধাপ-৮: Written এর প্রস্তুতি না্ও:
-আবার নীলক্ষেত যা্ও
>রিটেনের যেকোনো সেট বই কিনো [বি.দ্র: আমি প্রফেসর’স এর বই কিনেছিলাম।]
>খেয়াল করো অনেকগুলো টপিকস আছে যেগুলোতে প্রায় full marks পা্ওয়া যায়; যেমন- গণিত, ব্যাকরণ। এগুলোর উপর জোর দা্ও।
>তোমার যে বিষয়ে দখল বেশি তার উপর জোর দা্ও
> বাকিগুলোও ভালো করে পড়ো
>ভালো করে পরীক্ষা দাও: সুন্দর করে অনেক বেশি বেশি করে লিখবে, যতো পারো চিত্র, তথ্য, ফ্লো-চার্ট, কোটেশন ইত্যাদি দিবে
>৫০% পাশ মার্কস, কিন্তু মনে রেখো, রিটেনে শুধু পাশ করলে চলবে না, ভালো নম্বর পেতে হয়। সুতরাং অনেক নম্বর পা্ও (দোয়া করি)

ধাপ-৯: # Viva-র প্রস্তুতি
-আবার নীলক্ষেত যাও
>ভাইভার বই কিনো [বি.দ্র: আমি প্রফেসর’স এর বইটা কিনেছিলাম]
>ভাইভা সম্পর্কে একটা ভালো ধারণা না্ও
>প্রতিদিন এক ঘন্টা করে বিবিসি শোনো
-প্রতিদিন জোরে জোরে english news paper reading পড়ো
>তোমার পছন্দের ক্যাডারগুলো সম্পর্কে জানো
তোমার নিজের সম্পর্কে জানো: তোমার নাম, বাবা, মা, নিজ জেলা, নিজ বিষয়, ভার্সিটি, ডিপার্টমেন্টের প্রধান, শখ ইত্যাদি সম্পর্কে জানো
>মনে রাখো :
-ভাইভাতে তুমি পারো বা না পারো তার থেকে তুমি কীভাবে জবাব দা্ও তা বেশি গুরুত্বপূর্ণ
-মানুষকে এক দেখাতেই বলা যায়, সে কেমন
-যারা ভাইভা নিচ্ছে, তুমি হয়তো শেষ জীবনে তাদের মতো কিছু হতে চা্ও; সুতরাং তাদের মন থেকে সম্মান করো
-যারা ভাইভা নিচ্ছে, তারা চায় তোমার সাথে গল্প করতে, বর্তমান জেনারেশনটা কেমন, তা বুঝতে
-হাশিখুশি লোকদের সবাই পছন্দ করে
-তোমাকে বকা দেয়ার উদ্দেশ্য, তুমি কীভাবে রিএক্ট করো, তা দেখা; সুতরাং স্বাভাবিকভাবে হাসলেই, তার সমাধান হয়ে যাবে
>ভদ্র পোশাক পরে ভাইভা দিতে যেও
>ভাইভাটা সুন্দর করে দা্ও
>ভাইভা ভালো করো (দোয়া করি)

ধাপ-১০: Medical test & Police verification এ সাধারণত সবারই ভালো হয়। তাই এখন তুমি ফ্রি। ইচ্ছামতো আনন্দ করো, ঘুরে বেড়া্ও। পাশাপাশি বেশ কিছু টাকা হাতে রাখো; নতুন কোনো জায়গায় পোস্টিং হলে, সেক্ষেত্রে বেশ কিছু কেনাকাটা (পোশাক, লাগেজ, খাট, তোষক ইত্যাদি) লাগতেই পারে।

ধাপ-১১: Gazette প্রকাশ মানে তোমার, “চাকরিটা এখন হয়ে গেছে, বেলা শুনছো....” গা্ওয়ার সময় হয়ে গেছে। তবে আলহামদুলিল্লাহ বলতে ভুলো না।

ধাপ-১২: চাকরিতে যোগদান করো আর হয়ে যা্ও একজন বিসিএস ক্যাডার কর্মকর্তা।
বি:দ্র: ইহা পার্ট নহে। খাঁটি সত্য বটে। ভুল বুঝিবেন না।���

Mobash-Shir Ahmed Khan
৩৬তম বিসিএস (প্রশাসন) ক্যাডারে সুপারিশ প্রাপ্ত.☺😎😊
    Similar Topics
    TopicsStatisticsLast post
    0 Replies 
    571 Views
    by shihab
    0 Replies 
    603 Views
    by shihab
    0 Replies 
    758 Views
    by abdullacse0
    0 Replies 
    810 Views
    by abdullacse0
    0 Replies 
    583 Views
    by masum
    long long title how many chars? lets see 123 ok more? yes 60

    We have created lots of YouTube videos just so you can achieve [...]

    Another post test yes yes yes or no, maybe ni? :-/

    The best flat phpBB theme around. Period. Fine craftmanship and [...]

    Do you need a super MOD? Well here it is. chew on this

    All you need is right here. Content tag, SEO, listing, Pizza and spaghetti [...]

    Lasagna on me this time ok? I got plenty of cash

    this should be fantastic. but what about links,images, bbcodes etc etc? [...]

    bdQuiz খেলতে খেলতে নিজের প্রস্তুতি পরীক্ষা করুন