Let's Discuss!

বাংলাদেশ বিষয়ক সাধারণ জ্ঞান
#5019
কৃষিপণ্য উৎপাদনে শীর্ষ জেলা
পণ্য – উৎপাদনে শীর্ষ জেলা
ধান – ময়মনসিংহ
গম -ঠাকুরগাও
আলু – বগুড়া
ভুট্টা – দিনাজপুর
পাট – ফরিদপুর
কাঁঠাল – নরসিংদী
মাছ – ময়মনসিংহ
আম – রাজশাহী
পেয়ারা – পিরোজপুর
চা – মৌলভিবাজার
তামাক – কুষ্টিয়া
সয়াবিন – লক্ষীপুর
তুলা – ঝিনাইদহ

পাট
১.পাটকে কয় ভাগে ভাগ করা হয়?
-তিন শ্রেণীতে।
২.কী কী শ্রেনীতে পাটকে ভাগ করা যায়?
-সাদা, তোষা ও মেস্তা।
৩.বাংলাদেশের কোন জেলায় বেশি পাট উৎপন্ন হয়?
-ফরিদপুর জেলায়।
৪.পাটের ক্রোমোজোমের সংখ্যা কতটি?
-১৪টি।
৫.সোলি আশ জাতের পাটের বৈজ্ঞানিক নাম কী?
-Corchorus olitorious.
৬.দেশি সাদা জাতের পাটের বৈজ্ঞানিক নাম কী?
- Corchorus capsularis.
৭.সোনালি আশ কাকে বলে?
-পাটকে।
৮.সোনালি আশের দেশ বলা হয় কোন দেশকে?
-বাংলাদেশকে।
৯.বাংলাদেশ পাট গবেষণা ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠা কবে?
-১৯৭৪ সালে।
১০.জুটন কী?
-পাট ও তুলার সংমিশ্রণে এক ধরনের কাপড়।
১১.বাংলাদেশ পাট গবেষনা ইনস্টিটিউট কোথায় অবস্থিত?
-মানিক মিয়া এভিনিউ, ঢাকা।
১২.উন্নতজাতের আশ পাওয়া যায় কোন জাতীয় পাট থেকে?
-তোষা।
১৩.কোন মাটি পাট চাষে উপযুক্ত?
-দোআশ পলিমাটি।
১৪.পাট উৎপাদনে বাংলাদেশ বিশ্বে কততম?
-দ্বিতীয়।
১৫.বাংলাদেশের প্রধান অর্থকরী ফসল কোনটি?
-পাট।
    Similar Topics
    TopicsStatisticsLast post
    0 Replies 
    90 Views
    by Jahidhasan
    0 Replies 
    91 Views
    by Jahidhasan
    0 Replies 
    98 Views
    by sakib
    0 Replies 
    93 Views
    by sakib
    0 Replies 
    121 Views
    by sakib