Let's Discuss!

বিষয় ভিত্তিক প্রস্তুতি : বাংলদেশ ও বিশ্ব, দৈনন্দিন বিজ্ঞান এবং সাম্প্রতিক ঘটনাবলি
#269
Mathemata - গ্রীক শব্দ
Mathematics - ইংরেজী শব্দ
গণিত - বাংলা শব্দ
Mathematics is the science of space, numbers abdominal quantity.
1. পাটিগণিতের জনক — আর্যভট্ট (৪৭৬ - ৫৫০ খ্রি, ভারত)
2. পাটিগণিতের লেখক — যাদব চন্দ্র (চক্রবর্তী )(ভারত)
3. বীজগণিতের জনক — আবু জাফর ইবনে মুসা আল খোয়ারিজমী (৭৮০— ৮৫০ ) রাশিয়া মতান্তরে মিশর
4. বীজগণিতের লেখক — আল যাবের ইবনে হাইয়ান (ইরাক)
5. জ্যামিতির জনক — ইউক্লিড (৩২৫—২৬৫খ্রি. পূর্ব, গ্রীস)
6. শূন্য আবিষ্কারকারক — ব্রহ্মগুপ্ত (৬৬৫ — ৫৯৮ খ্রি পূর্ব, ভারত) ও আর্যভট্ট (৪৭৬ — ৫৫০ খ্রি)
7. সংখ্যাতত্ত্বের জনক — পিথাগোরাস (৫৭০ ৪৯৫ খ্রি. পূর্ব, গ্রীক বর্তমান তুরস্ক)
8. ক্যালকুলাসের জনক — নিউটন (১৬৪২ - ১৭২৭ খ্রি. ইংল্যান্ড, Scientist)
9. ম্যাট্রিক্সের জনক — কেইলে (যুক্তরাষ্ট্র)
10. ত্রিকোণমিতির জনক — হিপ্পারর্কাস (১৯০—১২০ খ্রি. পূর্ব, গ্রীক)
11. গণনার জনক — চার্লস ব্যাবেজ (ইংল্যান্ড) [ 26 December 1871, সমান্তরাল 1971]
12. লগারিদমের জনক — জন নেপিয়ার (১৫০০ — ১৬১৭ খ্রি. স্কটল্যান্ড)
13. গতিবিদ্যা জনক — গ্যালিলিও (১৫৬৪ — ১৬৪২ খ্রি. ইতালি)
14. স্থিতিবিদ্যা জনক — আর্কিমিডিস (২৮৭ — ২১২ খ্রি. পূর্ব গ্রীক, সিসিলি দ্বীপে)
15. সেট তত্ত্বের জনক — জর্জ ক্যান্টর (১৮৪৫ — ১৯১৮, জার্মানি)
16. আলগারিদমের জনক — ব্রহ্মগুপ্ত (৬৬৫ — ৫৯৮ খ্রি. পূর্ব ভারত)
17. সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ গণিতবিদ —
I. গাউস (সংখ্যাতত্ত্ব ও পরিসংখ্যানের নরমাল ডিস্ট্রিবিউশান) (জার্মানি)।
II. নিউটন ( বল বিদ্যা ও ক্যালকুলাস)
III. অার্কিমিডিস (পদার্থ বিজ্ঞান ও স্থিতি বিদ্যা ও পাটিগণিত)
18. আল জাবের ওয়াল মোকাবেলা বইটি কার? — আল খেয়ারিজমী।
19. শ্রীধর (shridhara) ( 650— 850): গোলকের আয়তন নির্ণয়ের নির্ণয়ের নিয়ম আবিস্কার করেন।
20. আর্যভট্ট (475A.D. — 550 A.D.): আর্যভট্ট প্রথম সুপরিচিত গণিতজ্ঞ। ভারতের কেরালা রাজ্যের কুসুমসুরে জন্মগ্রহণ করে নালন্দ বিশ্ববিদ্যালয় পড়াশোনা করেন। তিনি প্রথম ব্যক্তি যিনি বলেন পৃথিবী গোলাকার এবং পৃথিবী সূর্যের চারদিকে ঘোরে। তিনি (a+b)² = a² + 2ab + b² প্রথম শূন্যের ধারণা দেন।
২১. ব্রহ্মগুপ্ত (Brahmagupta) (598 A. D — 665 A.D. ): 598 খ্রীস্টাব্দে পাকিস্তান ব্রহ্মগুপ্ত জন্মগ্রহণ করেন। গুনের (Multiplication) চারটি পদ্ধতি তিনি দেন। ঋণাত্মক নাম্বারের সুচনা করেন তিনি। শূন্যের ধারণা প্রবর্তন করেন।(সংগৃহীত)।
    Similar Topics
    TopicsStatisticsLast post
    0 Replies 
    778 Views
    by tasnima
    0 Replies 
    970 Views
    by tasnima
    0 Replies 
    917 Views
    by rafique
    0 Replies 
    847 Views
    by rafique
    0 Replies 
    847 Views
    by rafique